ওপেক ( OPEC ) কী ?

পরিচিতিঃ ওপেক ( OPEC ) বা Organisation of Petroleum Exporting Countries – এই সংস্থাটি ১৯৬০ খ্রিস্টাব্দের ১৪ সেপ্টেম্বর গঠিত হয় । ইরান , ইরাক , কুয়েত , সৌদি আরব ও ভেনেজুয়েলা – এই পাঁচটি রাষ্ট্রের প্রচেষ্টায় বাগদাদে এই সংস্থাটি গড়ে ওঠে । এরপর ১৯৬১ খ্রিস্টাব্দে কাতার , ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দে ইন্দোনেশিয়া ও লিবিয়া , ১৯৬৭ খ্রিস্টাব্দে সংযুক্ত আরব আমিরশাহি , ১৯৬৯ খ্রিস্টাব্দে আলজিরিয়া , ১৯৭১ খ্রিস্টাব্দে নাইজেরিয়া এবং ১৯৭৩ খ্রিস্টাব্দে ইকুয়েডর ও গ্যাবন এই সংস্থার অন্তর্ভুক্ত হয় । বর্তমানে ইরাক ও ইকুয়েডর ওপেক – এর সদস্যপদ প্রত্যাহার করে নেওয়ার পর বাকি ১১ টি রাষ্ট্র এর সদস্য । ওপেক ভুক্ত দেশগুলির মধ্যে পৃথিবীর আবিষ্কৃত তেল সঞ্চয়ের প্রায় ৭৭ % সঞ্চিত আছে এবং এরা একসঙ্গে পৃথিবীর মােট খনিজ তেলের ৮০ % রপ্তানি করে । পৃথিবীর তেল রপ্তানির বাজারে এবং আরব তৈলজগতের স্বার্থ রক্ষার্থে ‘ ওপেক ’ একটি বলিষ্ঠ শক্তিরূপে কাজ করে ।

উদ্দেশ্যঃ ওপেক – এর মূল উদ্দেশ্য হলঃ
( ১ ) সদস্য দেশগুলির মধ্যে তেল সম্পর্কীয় নীতির সামঞ্জস্য বিধান করা ।
( ২ ) আন্তর্জাতিক বাজারে খনিজ তেলের মূল্য স্থিতিশীল রাখা ।
( ৩ ) বাণিজ্যিক রাষ্ট্রগুলির বাণিজ্যিক স্বার্থ সুরক্ষিত করা ।
( ৪ ) আন্তর্জাতিক বাজারে খনিজ তেলের যােগান অব্যাহত রাখা এবং সদস্য রাষ্ট্রগুলির আয় সুনিশ্চিত করা ।

গুরুত্বঃ খনিজ তেল বর্তমান সভ্যতার অন্যতম ধারক ও বাহক । সেই কারণে বিশ্বের অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক গতিপ্রকৃতি নির্ধারণে ও নিয়ন্ত্রণে ওপেক – এর গুরুত্ব ও প্রভাব অপরিসীম ।