জুইগেন (Zeugen):

সংজ্ঞাঃ কখনও কখনও কোনো কোনো শিলাস্তূপের কঠিন ও কোমল শিলাস্তরগুলো ওপর-নিচে পরস্পরের সমান্তরালভাবে অবস্থান করে । প্রচন্ড সূর্যতাপে এইসব উচ্চভূমিতে ফাটল সৃষ্টি হলে ওই সব ফাটলের মধ্য দিয়ে বায়ুপ্রবাহ ক্ষয়কার্য চালাতে থাকে । ফলে কঠিন শিলাস্তরগুলো অতি অল্প ক্ষয় পেয়ে টিলার মতো দাঁড়িয়ে থাকে এবং কোমল শিলাস্তরগুলি বেশি ক্ষয় পেয়ে ফাটল বরাবর লম্বা খাত বা গহ্বরের সৃষ্টি করে । এই রকম দুটো খাতের মধ্যে চ্যাপ্টা মাথা টিলার মতো যে ভূমিরূপ সৃষ্টি হয় তাকে জুইগেন (Zeugen) বলে ।

জুইগেন (Zeugen)

জুইগেন (Zeugen)

উদাঃ উত্তর আমেরিকার সোনেরান মরুভূমি অঞ্চলে অনেক জুইগেন দেখা যায় ।    

বৈশিষ্ট্যঃ জুইগেন – এর বৈশিষ্ট্যগুলি হলো নিম্নরূপ –
ক) এর উচ্চতা সাধারণত ৩ থেকে ৩০ মিটার পর্যন্ত হয় ।
খ) এর কঠিন শিলা ও কোমল শিলা আড়াআড়ি অবস্থায় থাকে ।
গ) এগুলি যান্ত্রিক আবহবিকার ও বায়ুর অবঘর্ষ প্রক্রিয়ার ফলে গঠিত হয় ।
ঘ) এগুলি দেখতে ছোট ছোট ব্যাঙের ছাতার মত হয় ।
ঙ) এদের উপরিভাগ চ্যাপ্টা ও সমতল হয় ।

3 comments

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  পরিবর্তন )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  পরিবর্তন )

Connecting to %s